সিলেটের ধ’র্ষিতার পাশে সাহস নিয়ে দাঁড়ান ছাত্রলীগ নেতা বাবলা

এই মানুষটিকে আমি চিনতাম না। আজ চিনলাম। এমন মানুষ সমাজে আছে বলেই সমাজ সুন্দর। সিলেট জে’লা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মিহিত গুহ চৌধুরী বাবলা। যিনি বাবলা চৌধুরী নামেই সেখানে পরিচিত। এই যে সিলেটে ধ’র্ষণকারীদের নিয়ে সারা দেশে তোলপাড় হচ্ছে সেই ধ’র্ষকদের বি’রুদ্ধে তিনি প্রথম রুখে দাঁড়িয়েছেন।

মেয়েটি ও তার স্বামী যখন কাঁদতে কাদতে যাচ্ছিল, তার সাথে পথে দেখা, তিনি ঘটনা শুনলেন এবং বললেন এমন জঘন্য ঘটনা মেনে নেয়া যায় না। এদের ছাড় দেয়া উচিত হবে না। বলেই বাবলা ফোন দেন শাহপরান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে।তবে পুলিশ আসার আগেই ওই নি’র্যাতিতা ও তার স্বামীকে নিয়ে ছাত্রাবাসের দিকে রওয়ানা দেন বাবলা। সাইফুর-রবিউল এর কাছ থেকে গাড়ির চাবি উ’দ্ধার করেন।

গেইটে দাঁড়িয়ে পুলিশের অপেক্ষা করেন। পুলিশ আসে এবং কয়েকজন নেতা ও নাকি সেখানে আসে। ঘটনা ধা’মাচা’পা দেয়ার চেষ্টা করেন, তর্ক হয়, মীমাংসা করতে চান অর্থের বিনিময়ে। কিন্তু বাবলা অনড় ছিলেন রাজী হননি, এই সুযোগে পা’লিয়ে যায় ধ’র্ষকরা।বাবলা বলেছিলেন তাদের ছাড় দেয়া উচিত হবে না। তিনি নি’র্যাতিতার পাশে দাঁড়ান।

মেয়েটি ও তার স্বামী ধ’র্ষণকারীদের ফেইস চিনলেও নাম জানতেন না। বাবলাই বলে দেন তারা কারা। এবং বলেন তাদের বিচার হওয়া উচিত।আসলে মানুষ মানুষের পাশে থাকলে অ’পরাধ করতে ও অ’পরাধীরা চিন্তা করবে।বাবলার মত মানুষরা এভাবে পদক্ষেপ নিলে মেয়েরা সমাজে চলতে ভ’য় পাবে না।(ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)