বিমানের নিজস্ব কাউন্টারে রি-ইস্যু হচ্ছে সৌদি যাত্রীদের টিকিট

বাংলাদেশ বিমানের সৌদি আরবের টিকিটধারী যাত্রীদের কোনো চার্জ ছাড়াই ধারাবাহিকভাবে টিকেট রি-ইস্যু করে আসন বরাদ্দ করছে।এসব টিকিট তাদের নিজস্ব টিকিট সেন্টার ছাড়া অন্য কোথাও রি-ইস্যু করার কোনো সুযোগ নেই বলে জানানো হয়েছে।তাই সৌদির টিকিটধারীদের এ ধরনের প্রতারণা থেকে সতর্ক থাকার অনুরোধ জানায় বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়।

আজ বুধবার বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানানো হয়।বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, সম্প্রতি কিছু অসাধু এজেন্সি ও ব্যক্তি সৌদি আরবে যাওয়ার টিকিট অর্থের বিনিময়ে পুণরায় ইস্যু করিয়ে দেবে বলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ও বিভিন্ন প্লাটফর্মে মিথ্যা এবং প্রতারণামূলক প্রচার চালাচ্ছে।

এ ধরনের কর্মকাণ্ড শাস্তিযোগ্য অপরাধ।এই ধরনের কর্মকাণ্ডে জড়িত না হওয়ার জন্য সবাইকে অনুরোধ করা যাচ্ছে।যারা এ ধরনের অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে।

আরো পড়ুন..বিশ্ব শিক্ষক দিবস উপলক্ষে কাতার এয়ারওয়েজ চলমান কভিড-১৯ মহামারিতে শিক্ষকদের অবদানের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে সৌজন্য টিকিট দিচ্ছে কাতার এয়ারওয়েজ। শিক্ষকদের ধন্যবাদ জানাতে ২১ হাজার সৌজন্য টিকিট দিচ্ছে। সুবিধাটি ৫ অক্টোবর থেকে ৮ অক্টোবর বেলা ০৩:৫৯-এ (দোহার সময়) বন্ধ হবে। শিক্ষকরা আগে আসলে আগে পাবেন ভিত্তিতে প্রস্তাবিত একটি অনন্য প্রচারণা কোড পাওয়ার জন্য একটি ফরম জমা দিয়ে এই বিশেষ অফারের জন্য qatarairways.com/ThankYouTeachers এই ঠিকানায় নিবন্ধন করতে পারবেন। চলতি ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত কাতার এয়ারওয়েজ পরিচালিত যেকোনো গন্তব্যে ভ্রমণের সুবিধা পাওয়া যাবে। কাতার এয়ারওয়েজ বর্তমানে ফ্লাইট পরিচালনা করছে এমন ৭৫টিরও বেশি দেশের শিক্ষকরা টিকিটের জন্য যোগ্য হবেন। সফলভাবে নিবন্ধিত শিক্ষকরা কাতার এয়ারওয়েজের বর্তমান নেটওয়ার্কে বিশ্বব্যাপী ৯০টিরও বেশি গন্তব্যের যেকোনো জায়গায় একটি ইকোনমি ক্লাসের ফিরতি টিকিট পাবেন। তাঁরা ভবিষ্যতের ফিরতি টিকিটের জন্য ৫০ শতাংশ ছাড়ের জন্য একটি ভাউচার পাবেন, যা তাঁদের নিজেদের, পরিবারের সদস্য বা বন্ধুর জন্য ব্যবহার করতে পারবেন।