তাইওয়ান বিশ্ববিদ্যালয়ে মুসলিম শিক্ষার্থীদের জন্য আলাদা নামাজঘরের উদ্বোধন

মুসলিম শিক্ষার্থীদের নামাজ আদায়ের জন্য আলাদা কক্ষের উদ্বোধন করা হয়েছে তাইওয়ানের এক বিশ্ববিদ্যালয়ে। দেশটির কিনম্যান কাউন্টি দ্বীপে অবস্থিত ন্যাশনাল কুয়েময় ইউনিভার্সিটি কর্তৃপক্ষ এই মহতি কাজ খুবই আন্তরিকতার সঙ্গে সম্পন্ন করায় সেখানকার শিক্ষার্থীরা বেশ খুশি। বুধবার এক অনাড়ম্বড় অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে এই নামাজঘরের দ্বার উন্মোচন করেন চ্যান্সেলর চেন চিয়েন মিন।

উদ্বোধনের পর তিনি বলেন, এখানে ১৬৫ জন বিদেশি শিক্ষার্থী আছে। যার মধ্যে ৪৩ জন ইন্দোনেশীয়। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, দেশ-বিদেশের মুসলিমদের ছাত্রছাত্রীরা যাতে উচ্চশিক্ষার জন্য এই প্রতিষ্ঠানকে বেছে নেন,

সে জন্যই ইউনিভার্সিটি ক্যাম্পাসের ভিতরেই নামাজঘর তৈরি করা হলো। এর মাধ্যমে তাইওয়ানের মুসলিমদের কাছে একটা ইতিবাচক বার্তা দেয়া হলো। তারা এই বিশ্ববিদ্যালয়ের মুসলিম-বান্ধব পরিবেশের প্রতি আকৃষ্ট হবেন।জানা গেছে, ইন্দোনেশিয়া থেকে আসা কয়েকজন ছাত্র কয়েক মাস আগে নামাজঘরের জন্য আবেদন করেছিলেন।

আরও পড়ুন=এক বৃদ্ধা ব্যাংক কাউন্টারে ৩০০ টাকার একটি চেক এগিয়ে দেন, তখন ওপাসে বসা ব্যাংকের মহিলা ক’র্মী সেই চেক দেখে বির’ক্ত’সহ বলেন, পাঁচহাজার টাকার কম টাকা তুলতে হলে আপনাকে এ.টি.এম. থেকে নিতে হবে। এই শুনে বৃদ্ধা প্রশ্ন করেন, “কেন ?মহিলা তখন ভুরু কুঁ’চ’কে আরো বি”র’’ক্ত হয়ে ঝাঁ’’ঝা”লো গলায় বলেন, “এ গুলো নিয়ম।

বৃদ্ধা খানিক চুপ করে থাকেন তারপরেই উনি চেকটি আবার কাউন্টারে দিয়ে জি’জ্ঞেস করেন, এই ব্যাংকের একাউন্টে আমার যত টাকা আছে সমস্ত টাকা তুলে আমায় এক্ষুণি দিয়ে দেন আমি আরেকটা চেক দিচ্ছি।এই কথা শুনে ব্যাংকের মহিলা একটু থতমত খেয়ে বৃদ্ধার একাউন্ট চেক করে আরো বি’’স্মি’ত! মাথা নে”ড়ে নে’ড়ে কাউন্টারের কাঁ’চে’র সাথে মুখ সাঁটিয়ে, ফিসফিস করে সে বৃদ্ধাকে বলে, আপনার একাউন্টে ৭৫ লক্ষ টাকা! মা”ফ করবেন, আমাদের ব্যাংকে এই মু’হূর্তে দেবার মত এত টাকা নেই।