আলহামদুলিল্লাহ, আমি খুশি হয়েছি, মিন্নির ফাঁ’সি কার্যকর হলে মিলাদ দেব: নয়ন বন্ডের মা

বরগুনায় আলোচিত রিফাত হ’ত্যা মা’মলার রায়ের পর নয়ন বন্ডের মা ক্ষো’ভ প্রকাশ করেছেন মিন্নির ওপর। গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ, আমি খুশি হয়েছি। এই রায় কার্যকর হলে আমি মিলাদ দেব। মিন্নির কারণে আমার ছেলের এমন পরিণতি হয়েছে। আমার ছেলে ভালো হয়ে গেছিল। মিন্নি রিফাতকে বিয়ে করার পর নয়ন ক্ষু’ব্ধ হয়। আমি মিন্নিকে কখনও ক্ষমা করবো না।’

সাহিদা বেগম আরও বলেন, ‘মিন্নির এমন বিচারে সবাই সচেতন হবে। যাতে করে নতুন করে মিন্নির মত কেউ জন্ম না নেয়। ওর কারণে কতগুলা পরিবার ধ্বং’স হয়ে গেলো। আমার ছেলের পরিণতি হলো বিচার ছাড়া মৃ’ত্যু। আমার ছেলে অন্যায় করলেও ন্যায়বিচারের দাবি রাখি আমরা। কিন্তু সে সুযোগ দেওয়া হয়নি, আমি আমার ছেলেকে নি’র্বিচারে হ’ত্যার বিচার চাই।’

রায়ের পর প্রতিক্রিয়ায় এসব কথা বলেন ব’ন্দুকযু’দ্ধে নিহ’ত এই মা’মলার অন্যতম আসামি নয়ন বন্ডের মা সাহিদা বেগম। গত ২ জুলাই ২০১৯ তারিখ ভোরে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযু’দ্ধে নিহ’ত হয় রিফাত শরীফ হ’ত্যা মা’মলার প্রধান আসামি ০০৭ বন্ড গ্রুপের প্রধান নয়ন বন্ড।

আরো পড়ুন… ধুয়ে পরিষ্কার করা হলো পবিত্র কাবা শরিফ। বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) ধোয়ামুছার এ কাজ সম্পূর্ণ করা হয়। সৌদি গেজেটের এক প্র’তিবেদনে বলা হয়, সৌদি আরবের বাদশাহ ও পবিত্র দুই মসজিদের জিম্মা’দার সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সৌদের পক্ষ থেকে কাবা শরিফ ধোয়ার কাজে নেতৃত্ব দেন মক্কার আমির যুবরাজ খালিদ আল ফয়সাল। চলমান মহামা’রি করোনা ভাইরাস সং’ক্রমণ থেকে পবিত্র স্থানে ভ্রমণকারীরা যেন রক্ষা পান, সে জন্য কাবা শরিফ ধৌত করার আয়োজন করা হয়।