আগামীকাল থেকে কাতার রুটে বিমানের নিয়মিত ফ্লাইট চালু

করোনার কারণে দীর্ঘ বিরতির পর আবার শুরু হচ্ছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের নিয়মিত দোহা-ঢাকা-দোহা রুটে ফ্লাইট চলাচল।আগামীকাল ১৭ সেপ্টেম্বর থেকে কাতারের দোহা রুটে পুনরায় ফ্লাইট পরিচালনা করবে বাংলাদেশ বিমান।কাতারস্থ বিমানের কান্ট্রি ম্যানেজার রেজাউল আহসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, সপ্তাহে বৃহস্পতিবার ও সোমবার দোহা-ঢাকা দুটি ফ্লাইট পরিচালিত হবে।কাতার থেকে বাংলাদেশে যেতে ইচ্ছুক প্রবাসীদের বিস্তারিত তথ্যের জন্য বিমানের ওয়েবসাইট এবং কাতার বিমান অফিস বিক্রয় কাউন্টার ৪৪৪৩৩১১৭ নম্বরে ফোন অথবা নিকটস্থ ট্রাভেল এজেন্সিতে যোগাযোগ করতে হবে।

আরো পড়ুন…বর্তমানে দেশে কর্মরত বিদেশি কর্মীরা মূল বেতনের সর্বোচ্চ ৭৫ শতাংশ নিজ দেশে নিতে পারেন রেমিট্যান্স হিসেবে। এখন থেকে রপ্তানি প্রত্যাবাসন কোটা (ইআরকিউ) অ্যাকাউন্ট থেকে বিদেশি কর্মীদের বৈদেশিক মুদ্রা (এফসি) অ্যাকাউন্টে বেতন জমা করতে পারবেন।গতকাল মঙ্গলবার বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রা বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত সার্কুলার জারি করেছে। নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ব্যাংকে থাকা এফসি হিসাবের মাধ্যমে বিদেশি কর্মীরা নিজ দেশে অর্থ নিতে পারবেন।ব্যাংকের এডি শাখাগুলো বিদেশি কর্মীদের থাকা এফসি হিসাবের মাধ্যমে বেতনের সমপরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা পাঠাতে পারবে। এ ক্ষেত্রে অবশ্যই রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের ইআরকিউ হিসাবে জমা থাকা বৈদেশিক মুদ্রার পরিমাণ দেখতে হবে। শুধু সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের অনুমতি থাকা বিদেশি কর্মীদের বেতনই এফসি হিসাবের মাধ্যমে দেওয়া যাবে। ব্যাংককে যাচাই করে দেখতে হবে কতজন বিদেশি কর্মীর অনুমোদন রয়েছে রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের।

এর আগে গত জুনে এক নির্দেশনায় উল্লেখ করা হয়, বিদেশি কর্মীদের বেতন অবশ্য এফসি হিসাবের মাধ্যমে দিতে হবে। এ হিসাব থেকেই তারা নিজ দেশে অর্থ পাঠাতে পারবেন। বিদেশি কর্মীরা এ হিসাবের বিপরীতে ডেবিট অথবা প্রিপেইড কার্ড নিতে পারে। এ ডেবিট কার্ডের টাকা দিয়ে ভ্রমণ সম্পর্কিত ব্যয় করতে পারবেন বিদেশিরা। তাদের অ্যাকাউন্টে গচ্ছিত ও টিকিট কেনার টাকাগুলো বাংলাদেশের রেমিট্যান্স হিসেবে বিবেচিত হবে